Nokshi Katha Price in Bangladesh – 3 Different Size & Simple Design/ Never buy Machine Embroidery নকশি কাঁথা

নকশি কাঁথা হলো সাধারণ কাঁথার উপর নানা ধরনের নকশা করে বানানো বিশেষ প্রকারের এক ধরনের কাঁথা যে কাথায় বিশেষ রঙের সুতা দিয়ে ফুল সহ  লতা, পাতা ও অন্যন্য বস্তুর নকশা করা থাকে। নকশি কাঁথা বাংলাদেশের প্রাচিন সংস্কৃতি ও লোকশিল্পের একটি অংশ।

Nokshi Katha Price in Banglades

Nokshi Katha Design নকশি কাথা ডিজাইন

নকশি কাঁথা সেলাইয়ের কোনো নির্দিষ্ট নকশা নেই। যিনি সেলাই করেন তার মনে যা আসে তা-ই তিনি সেলাই করে যান। বলা যায় এটি হচ্ছে মনের ডাইরি। সূর্য, চাঁদ, গাছ, পাখি, মাছ, ফল, মানুষ, ময়ূরসহ বিভিন্ন নকশা করা হয় নকশি কাঁথায়। তবে সেলাইয়ের ধরন অনুযায়ী কাঁথাগুলো নিম্নলিখিত প্রকারে ভাগ করা হয়েছে যেমন, চলমান সেলাই, লহরী কাঁথা, আনরসি কাঁথা, বাকা কাথা ইত্যাদি।

Nokshi Katha price in Bangladesh

সাধারণত গ্রামের মহিলারা তাদের অবসর সময় নকশি কাঁথা সেলাই করে থাকেন। এক একটি কাঁথা সেলাই করতে অনেক সময়, এমনকি ১ বছর সময়ও লেগে যায়। নতুন জামাইকে বা নাদ বউ কে উপহার দেয়ার জন্য নানী-দাদীরা নকশি কাঁথা সেলাই করে থাকেন। এক একটি কাঁথা সেলাইয়ের পিছনে অনেক হাসি-কান্নার কাহিনী থাকে। বিকেল বেলা বা রাতের খাবারের পর মহিলারা একসাথে বসে গল্প করতে করতে এক একটি কাঁথা সেলাই করেন। তাই বলা হয় নকশি কাঁথা এক একজনের মনের কথা বলে।

নির্মাণশৈলী / Making of Nokshi Katha

কাছে থেকে দেখা রাজশাহীর কাঁথা। বাম ও নিচের দিক জুড়ে কাঁথার পাড় দেখা যাচ্ছে। কাঁথার জমিনে সাধারণ কাঁথা ফোঁড়ে সাদা সুতা দিয়ে তরঙ্গ আকারে সেলাই দেয়া হয়েছে।

Making of Nokshi katha

গ্রামাঞ্চলের নারীরা পাতলা কাপড়, প্রধানত পুরানো কাপড় স্তরে স্তরে সজ্জিত করে সেলাই করে কাঁথা তৈরি করে থাকেন। কাঁথা মিতব্যয়ীতার একটি উৎকৃষ্ট উদাহরণ, এখানে একাধিক পুরানো জিনিস একত্রিত করে নতুন একটি প্রয়োজনীয় জিনিস তৈরি করা হয়। কাঁথা তৈরির কাজে পুরানো শাড়ি, লুঙ্গি, ধুতি ইত্যাদি ব্যবহৃত হয়। প্রয়োজন অনুযায়ী কাঁথার পুরুত্ব কম বা বেশি হয়। পুরুত্ব অনুসারে তিন থেকে সাতটি শাড়ি স্তরে স্তরে সাজিয়ে নিয়ে স্তরগুলোকে সেলাইয়ের মাধ্যমে জুড়ে দিয়ে কাঁথা তৈরি করা হয়। সাধারণ বা কাঁথাফোঁড়ে তরঙ্গ আকারে সেলাই দিয়ে শাড়ীর স্তরগুলোকে জুড়ে দেয়া হয়।

 বিভিন্ন রঙের পুরানো কাপড় স্তরীভূত করা থাকে বলে কাঁথাগুলো দেখতে বাহারী রঙের হয়। সাধারণত শাড়ীর রঙ্গীন পাড় থেকে তোলা সুতা দিয়ে কাঁথা সেলাই করা হয় এবং শাড়ীর পাড়ের অনুকরণে কাঁথাতে নকশা করা হয়। তবে কোন কোন অঞ্চলে (প্রধানত রাজশাহী-চাঁপাইনবাবগঞ্জ এলাকায়) কাপড় বোনার সুতা দিয়েও কাঁথাতে নকশা করা হয়ে থাকে। 

সাধারণ কাঁথা কয়েক পাল্লা কাপড় কাঁথাফোঁড়ে সেলাই করা হলেও এই ফোঁড় দেয়ার নৈপুণ্যের গুণে এতেই বিচিত্র বর্ণের নকশা, বর্ণিল তরঙ্গ ও বয়নভঙ্গির প্রকাশ ঘটে। নকশার সাথে মানানোর জন্য বা নতুন নকশার জন্য কাঁথার ফোঁড় ছোট বা বড় করা হয় অর্থাৎ ফোঁড়ের দৈর্ঘ্য ছোট-বড় করে বৈচিত্র্য আনা হয়। উনিশ শতকের কিছু কাঁথায় কাঁথাফোঁড়ের উদ্ভাবনী প্রয়োগকে কুশলতার সাথে ব্যবহার করার ফলে উজ্জ্বল চিত্রযুক্ত নকশা দেখা যায়। কাঁথাফোঁড়ের বৈচিত্র্য আছে এবং সেই অনুযায়ী এর দুটি নাম আছেঃ পাটি বা চাটাই ফোঁড় এবং কাইত্যা ফোঁড়।

বেশিরভাগ গ্রামের নারী এই শিল্পে দক্ষ। সাধারণত গ্রামের মহিলারা তাদের অবসর সময় নকশি কাঁথা সেলাই করে থাকেন। এক একটি কাঁথা সেলাই করতে অনেক সময়, এমনকি ১ বছর সময়ও লেগে যায়। নতুন জামাইকে বা নাদ বউকে উপহার দেয়ার জন্য নানী-দাদীরা নকশি কাঁথা সেলাই করে থাকেন। এক একটি কাঁথা সেলাইয়ের পিছনে অনেক হাসি-কান্নার কাহিনী থাকে। 

বিকেল বেলা বা রাতের খাবারের পর মহিলারা একসাথে বসে গল্প করতে করতে এক একটি কাঁথা সেলাই করেন। তাই বলা হয় নকশি কাঁথা এক একজনের মনের কথা বলে। এটি মূলত বর্ষাকালে সেলাই করা হয়। একটা প্রমাণ মাপের কাঁথা তৈরিতে ৫ থেকে ৭ টা শাড়ী দরকার হয়। আজকাল পুরাতন সামগ্রীর বদলে সূতির কাপর ব্যবহার করা হয়। ইদানীং কাঁথা তৈরিতে পুরাতন কাপড়ের ব্যবহার কমে গেছে।

মূলত নকশা করার পূর্বে কোন কিছু দিয়ে এঁকে নেওয়া হয়। তারপর সুঁই-সুতা দিয়ে ওই আঁকা বরাবর সেলাই করা হয়। কাঁথায় সাধারণত মধ্যের অংশের নকশা আগে করা হয় এবং ধীরে ধীরে চারপাশের নকশা করা হয়। আগে কিছু কাঁথার নকশা আঁকানোর জন্য কাঠের ব্লক ব্যবহার করা হত, এখন ট্রেসিং পেপার ব্যবহার করা হয়।

Nokshi Katha Price in Bangladesh/ বাংলাদেশে নকশি কাঁথার দাম

কাথার আকার আকৃতি, নকশা, কাপর ও সুতার কোয়ালিটির উপর মূলত দাম নির্ভর করে। সাধারন নকশার একটি কাথা এক দিনেই তৈরি করা যেতে পারে তবে বিশেষ বিশেষ ডিজাইনের নকশি কাথা বানাতে এক বছর পর্যন্ত সময় লাগতে পারে। তবে সাধারনত ছোট বাচ্চাদের জন্য তৈরি করা সাধারন ডিজাইনের একটি কাথার দাম ৫০০ টাকা থেকে শুরু করে ২৫০০ টাকা পর্যন্ত হতে পারে। বড় মাপের ভাল ডিজাইনের একটি কাথা ৬০০০ টাকা থেকে শুরু করে ২৫০০০ টাকা পর্যন্ত হতে পারে।

সল্প মূল্যে যশোরের নকশি কাঁথা / Lowest Nokshi Katha price in Bangladesh from Jessore / Never buy Machine Embroidery Katha

 যশোর বাঘারপাড়া থানার পান্থ পাড়া গ্রামের মেয়েরা অনেকে বছর ধরে নকশি কাথা তৈরি করে আসছে। তাদের তৈরি নকশি কাথার ডিজাইন ও মান অন্যদের থেকে আলাদা হবার কারনে যশরের নকশি কাথার কদর পুরো বিশ্বজুড়ে। আমরা সরাসরি যশোর থেকে নকশি কাথা সংগ্রহ করে সল্প মূল্যে আমাদের ক্রেতাদের সরবরাহ করে থাকি। You will find Nokshi Katha from Jessore at lowest price. 

Use of Nokshi Katha / নকশি কাথার ব্যবহার

কাঁথা সাধারণত বিছানা হিসেবে এবং অল্প শীতে হালকা চাদর হিসেবে ব্যবহূত হয়। ছোট কাঁথা শিশুকে পেঁচিয়ে রাখার কাজেও ব্যবহূত হয়। আকার ও ব্যবহারের ওপর নির্ভর করে কাঁথার বিভিন্ন নাম হয়। লেপ-কাঁথা ও শুজনি-কাঁথা আকারে বড় এবং লেপ-কাঁথা হয় মোটা, আর শুজনি-কাঁথা হয় পাতলা। এক বর্গফুট আকারের কাঁথার নাম রুমাল-কাঁথা। এ ছাড়া আরও আছে আসন-কাঁথা– বসার কাজে ব্যবহূত হয়; বস্তানি বা গাত্রি– কাপড়-চোপড় বা অন্যান্য মূল্যবান জিনিসপত্র ঢেকে রাখা হয়; আর্শিলতা– আয়না, চিরুনি, কাজলদান ইত্যাদি ঢেকে রাখার কাজে ব্যবহূত হয়; দস্তরখান– খাবারের সময় মেঝেতে পেতে তার উপর খাদ্যদ্রব্য ও বাসন-কোসন রাখা হয়; গিলাফ– খাম আকৃতির এ কাঁথার মধ্যে কুরআন শরিফ রাখা হয় এবং জায়নামাজ– যার উপর বসে নামায পড়া হয়।

Babybuy.com.bd is a online Baby Shop located in Dhaka Bangladesh. We deal with all kinds of bay product like Baby Diaper,Toys, Baby Gears & others Baby Accessories .

Please visit our Facebook Page for latest product news and reviews. Wish you a great day with your baby!

Tags: nokshi katha, baby nokshi katha, nokshi katha price in bangladesh, nokshi katha stitch, nakshi katha, nokshi katha art, nokshi katha selai, nokshi katha salai, nokshi katha dhaka, nokshi katha design ,simple nokshi katha, nokshi kantha, nakshi kantha design, bangladeshi nakshi kantha, nokshi kathar design picture, nokshi katha tutorial, new nokshi katha design, how to make nakshi kantha design, nokshi katha নকশী_কাঁথা ,how to stitch nokshi katha